কালো ইথিওপিয়ায় রঙিন পাহাড়

67
Afar-Triangle-10
ইথিওপিয়ার আফার ট্রায়াঙ্গেল- পাহাড় নয়, যেন রঙিন ফুল

কালো মানুষদের দেশ ইথিওপিয়া। আফ্রিকার দরিদ্রপীড়িত দেশ। সাদা মানুষদের অনেকে কালো বলে ওদের দূর দূর করে। দরিদ্র বলে নাক সিঁটকায়। কিন্তু প্রকৃতি তো আমাদের মতো নয়। প্রকৃতি উদার। প্রকৃতির সবার। তাই কালো ইথিওপিয়ায়ও ঢেলে দিয়ে সৌন্দর্যের ডালি। আগ্নেয়গিরির লাভায় পড়ে তুলেছে রঙিন পাহাড়। পাহাড় নয়, যেন রঙিন ফুল।

Afar-Triangle-1
আগ্নেয়গিরি থেকে নির্গত রঙিন লাভায় শুধু পাহাড়ই রঙিন হয় নি, লাভায় সৃষ্টি হয়েছে বর্ণিল হ্রদ

ইথিওপিয়ার দক্ষিণাঞ্চলের পার্বত্য এলাকায় ওই রঙিন ফুল ফুটেছে। এখানে পাশাপাশি তিনটি পাহাড় একটি ত্রিভুজের মতো তৈরি করেছে। আর এর জন্য জায়গাটির নাম হয়েছে আফার ট্রায়াঙ্গেল।

Afar-Triangle-12
আফার ট্রায়াঙ্গেলের আগ্নেয়গিরি। এ আগ্নেয়গিরি থেকেই বের হয়েছে রঙিন লাভা

আফার ট্রায়াঙ্গেলে রয়েছে দুটি আগ্নেয়গিরি। এ আগ্নেয়গিরির থেকে বের হওয়া লাভায় রঙিন হয়েছে পাহাড়ের গা। তার ঢাল, যাকে আমরা গিরিখাত হিসেবে চিনি।

Afar-Triangle-5

আগ্নেয়গিরি কি জানো তো তোমরা? নিশ্চয়ই জানো। তবু তোমাদের সাথে একটু শেয়ার করি। দেখো তো, আমিই ঠিক আছি কি না। তোমরা তো জানো, আমরা পৃথিবীর উপরের দিকে বাস করি। পৃথিবীর ভেতরের অংশটা কিন্তু প্রচণ্ড গরম। আর সেখানে টগবগ করে ফুটছে নানা খনিজ পদার্থ। ভূপৃষ্ঠের কোনো দূর্বল অংশ থাকলে সেখান দিয়ে প্রচণ্ড বেগে বের হয়ে আসে এসব পদার্থ। যেখান দিয়ে এসব পদার্থ বের হয়ে আসে, সেটিকে আগ্নেয়গিরি বলে। আর আগ্নেয়গিরি থেকে বের হয়ে আসা পদার্থকে বলে লাভা।

ইথিওপিয়ায় মূলত লাভা থেকেই রঙিন সাজে সেজেছে আফা ট্রায়াঙ্গেল। পাহাড় থেকে গড়িয়ে নিচে নেমে সৃষ্টি করেছে ছোট বড় হ্রদ। হ্রদের নিচের দিকটায় যে রঙের লাভা, পানিকে সে রঙের মনে হয়।

মন্তব্য